শোক দিবস পালনে বিশ্বনাথে আ.লীগের দুটি গ্রুপের পৃথক কর্মসূচি ঘোষনা

প্রকাশকাল- ২২:৪৩,আগস্ট ১২, ২০১৭,সিলেট বিভাগ বিভাগে

বিশ্বনাথ প্রতিনিধি
জাতীয় শোক দিবস ও জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৪২তম শাহাদৎ বার্ষিকী পালন উপলক্ষে সিলেটের বিশ্বনাথে আওয়ামী লীগের দুটি গ্রুপ পৃথক কর্মসূচি ঘোষনা করেছে। ইতি মধ্যে উভয় গ্রুপ শোক দিবস পালনের লক্ষে প্রস্তুতি সভা করে। উপজেলা আওয়ামী লীগের দুটি গ্রুপের সহযোগি সংগঠনগুলোও শোক দিবস পাললের লক্ষে পৃথকভাবে প্রস্তুতি সভা অব্যাহত রেখেছে। উপজেলা আওয়ামী লীগের দুটি গ্রুপ রয়েছে। সিলেট জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক,সাবেক এমপি শফিকুর রহমান চৌধুরী বলয়ের একটি গ্রুপ ও যুক্তরাজ্য আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সম্পাদক আনোয়ারুজ্জামান চৌধুরী বলয়ের আরেকটি গ্রুপ রয়েছে। ইতি মধ্যে দুটি গ্রুপ পৃথক পৃথক বিভিন্ন কর্মসূচি পালন করে আসছে। শোক দিবসে আওয়ামী লীগ ও সহযোগি সংগঠনের পাল্টা-পাল্টি কর্মসূচি ঘোষনার ফলে এলাকাবাসী রয়েছেন আতংকে।
দলীয় সূত্রে জানাগেছে, ২০১৫ সালের ৮ জুন উপজেলা আওয়ামী লীগের সম্মেলন হয়। ওই সম্মেলনের কণ্ঠভোটে পংকি খানকে সভাপতি ও পুনারায় বাবুল আখতারকে সাধারণ সম্পাদক ঘোষণা করা হয়। তবে সম্প্রতি ওমরা হজ্ব পালনকালে সৌদিআরবে বাবুল আখতার মৃত্যুবরণ করেন। তারা দু’জনই শফিকুর রহমান চৌধুরী গ্রুপের নেতা। কিন্তু এই কণ্ঠভোটের প্রতিবাদ করেন আনোয়ারুজ্জামান চৌধুরী গ্রুপের নেতাকর্মীরা। তাদের দাবি, গোপন ভোটের মাধ্যমে সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত করতে হবে। আনোয়ারুজ্জামান গ্রুপের নেতাকর্মীদের দাবির মুখে দীর্ঘ দুই বছরেও ওই তালিকার কমিটি প্রকাশ করা হয়নি। এ নিয়ে জেলা কমিটির সঙ্গে একাধিকবার বৈঠক হয়েছে বলে দলীয় সূত্রে জানা গেছে। আর ওই দ্বন্ধের দুই বছর ধরে এভাবেই ঝুলে রয়েছে উপজেলা আওয়ামী লীগের কমিটি। এছাড়া একই দ্বন্ধে আটকে আছে উপজেলা যুবলীগের কমিটিও। ওই দ্বন্ধের কারণে স্থানীয়ভাবে নেতৃত্ব সংকটে রয়েছেন আওয়ামী লীগ নেতাকর্মীরা। গত ৩১ জুলাই জেলা ছাত্রলীগ উপজেলা ছাত্রলীগের একটি কমিটি ঘোষণা করা হলেও বির্তক চলছে। ওই কমিটির বিরুদ্ধে আরেকটি বিদ্রোহী কমিটিও ঘোষণা করা হয়েছে। পাশাপাশি গ্রুপিংয়ের বাইরে থাকা অনেক নেতাকর্মীর মধ্যে হতাশা বিরাজ করছে। শোক দিবস পালন উপলক্ষে শফিকুর রহমান চৌধুরীর বলয়ের আওয়ামী লীগ নেতারা গত ৫ আগষ্ট প্রস্তুতি সভা করে কর্মসূচি ঘোষনা করেন। তাদের কর্মসূচির মধ্যে রয়েছে ১৬ আগষ্ট মিলাদ মাহফিল ও আলোচনা সভা। উপজেলার ৮টি ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের উদ্যোগে শোক দিবস পালনের প্রস্তুতি সভা অব্যাহত রয়েছে। ইতি মধ্যে কয়েকটি ইউনিয়নে প্রস্তুতি সভা সম্পন্ন হয়েছে।
অন্যদিকে, গত বৃহস্পতিবার রাতে আনোরুজ্জামান চৌধুরীর বলয়ের আওয়ামী লীগ নেতারা শোক দিবস পালনের লক্ষে প্রস্ততি সভা করে কর্মসূচি ঘোষনা করেন। তাদের কর্মসূচির মধ্যে রয়েছে ১৫ আগষ্ট মিলাদ মাহফিল ও আলোচনা সভা। উভয় গ্রুপের পৃথক কর্মসূচি উপজেলা সদরের অনুষ্ঠিত হবে।
অপরদিকে, উপজেলা ছাত্রলীগের বিদ্রোহী গ্রুপ শোক দিবস উপলক্ষে ১৫ আগষ্ট উপজেলা সদরের শোক র‌্যালী বের করার ঘোষনা দিয়েছে।
এব্যাপারে আনোয়ারুজ্জামান বলয়ের উপজেলা আওয়ামী লীগ সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক ফারুক আহমদ বলেন, শোক দিবস উপলক্ষে ইতি মধ্যে প্রস্তুতি সভা করা হয়েছে। ১৫ আগষ্ট মিলাদমাহফিল ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হবে। তবে আবহাওয়া অনুকুলে থাকলে র‌্যালী বের করা হবে বলে তিনি জানান।
উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আলহাজ্ব পংকি খান বলেন, জাতীয় শোক দিবস ও জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর শাহাদৎ বার্ষিকী পালন উপলক্ষে উপজেলা আওয়ামী লীগ ও সহযোগি সংগঠনের উদ্যোগে ১৬ আগষ্ট আলোচনা সভা ও মিলাদ মাহফিল অনুষ্ঠিত হবে। শোক দিবসের কর্মসূচি পালনের লক্ষে উপজেলার ৮টি ইউনিয়নে প্রস্তুতি সভা অব্যাহত রয়েছে বলে তিনি জানান।